কবিগানে বিপিএলের টিম রিভিউ ১

তারাশঙ্কর বন্দ্যোপাধ্যায়ের কবি উপন্যাস পড়ার পর থেকে আমি কবিগানের বিরাট ভক্ত হয়ে গেছি। এর আগে চট্টগ্রাম আবাহনীর জয় নিয়ে লিখেছিলাম। এবার বিপিএলের বিভিন্ন দলকে মুখোমুখি দাড় করাবো কাল্পনিক কবিগানের আসরের মধ্য দিয়ে। আজ থাকবে চট্টগ্রাম আর রংপুরের কথা।

হবে আজ,
বিপিএলের কঠিন লড়াই,
কবিগানে!

বাহের দেশের মানুষ মোরা, মেরেছি বিরাট দান,
দলনেতা বিশ্বসেরা, সাকিব আল হাসান!
আহা বেশ বেশ বেশ!
বল হাতে ঘূর্ণি মায়া,
ব্যাটসম্যান বলে আর পারিনা ভায়া!
ব্যাট হাতেও নির্ভরতা, বাংলাদেশের জান!
আসেন সবাই দাড়িয়ে তারে জানাই সম্মান!

চট্টগ্রাম : এতক্ষন ভালোই কইলে, অ্যাঁর কবি ভাই,
তবে তোমায় আমি একখান কথা কইতে চাই,
ভাইরে, ক্রিকেটটা তো আর একজনের খেলা নয়,
১১ জনে মিলে তবেই বিশ্বজয়ী হয়!

রংপুরঃ বাহে, এতক্ষন তো বুললাম একজনের কথা,
আর খেলার মানুষ নেই, মনে করো না তা!
কুড়ি বিশের খেলা তো ভাই ধুমধাড়াক্কার খেলা,
তাই আমরা বসিয়েছি সব্যসাচীর মেলা!
সৌম্য সামি মোহাম্মাদ নবি থিসারা পেরেরা,
ব্যাট বল দুই দিকেই সমান তাহারা!

চট্টগ্রামঃ সব্যসাচী কি তোমাদের একাই আছে ভাই,
আমাদের কি আর সব্যসাচী নাই?
চিগুম্বুরা কাপুগেদারার নাম কি শোন নাই?
আরও আছে দিলস্কুপ আর ছক্কা নাইম ভাই,
ব্যাট বলে জিয়াউর রহমানেরও তুলনা নাই!
ব্যাট হাতে আছে দুই ভাই তামিম আর নাফিস,
আকমল ভাইয়েরাও আছেন, করবেননা ক্যাচ মিস!
বল হাতে আছেন তাসকিন দ্য স্পিড স্টার,
শিরোপাটা ভাইকিংস জিতবেই এবার!

রংপুরঃ আরে শন দেখি বাপু, চাটগাইয়ার কথা,
এত সহজে ট্রফি জিতবে, হতে দেবো না তা!
দলে নিয়েছ তো কিছু চাকার আর ফিক্সার,
দুসরা আজমলকে মেরে তো করবো গ্যালারী পার!
কোন গ্যারান্টি দিতে পারো, আমির আবার করবে না ফিক্সিং?
কিভাবে বল সেটা, ও ভাই ভাইকিং?

সমস্বরেঃ সব শেষে আমরা একটি কথাই বলতে চাই,
ফিক্সিং বিহীন সুন্দর একটি টুর্নামেন্ট যেন হয়!

কমেন্টস

কমেন্টস

মন্তব্য করুন

twenty + 4 =