স্ট্রাইকরেট শতভাগ থাকবে ত দ্রগবার?

স্ট্রাইকরেট শতভাগ থাকবে ত দ্রগবার?

ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের এই মৌসুমের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচ খেলতে কাল আর্সেনালের এমিরেটসে নামবে আর্সেনাল ও চেলসি। মূল স্ট্রাইকার ডিয়েগো কস্টা ও লইক রেমির ইঞ্জুরির কারণে কোচ হোসে মরিনিওর হাতে ফিট স্ট্রাইকার বলতে এখন আছেন খালি দিদিয়ের দ্রগবাই। বর্তমান সময়ে নিজের পছন্দের দুই স্ট্রাইকার ইঞ্জুরড যেহেতু, মরিনিও কি সত্যি চিন্তায় আছেন? না দুইজনের কস্টা-রেমি’র ইঞ্জুরিটা তার জন্য শাপেবর হয়ে এসেছে?

আর্সেনালের বিপক্ষে দ্রগবার প্রথম গোল
আর্সেনালের বিপক্ষে দ্রগবার প্রথম গোল

পাঠকরা ভাবতে পারেন দলের খেলোয়াড় ইঞ্জুরড হলে কোচের শাপেবর কেন হবে! এইখানেই টুইস্ট! আর্সেনালের বিপক্ষে এর আগে চেলসি না গ্যালাতাসারাইয়ের হয়ে দ্রগবা যে ১৫টি ম্যাচ খেলেছেন, ম্যাচগুলোয় তাঁর গোলও ঠিক ১৫টিই! এতবছর ধরে দুনিয়ার সকল বাঘা বাঘা স্ট্রাইকারদের নিষ্ক্রিয় করার পরিকল্পনা সফলভাবে করতে পারলেও দ্রগবার দাওয়াই এখনো পর্যন্ত বের করতে পারেননি আর্সেনাল কোচ আর্সেন ওয়েঙ্গার। নিজের প্রিয় প্রতিপক্ষের সাথে খেলায় অপ্রত্যাশিতভাবে সুযোগ পেয়ে গিয়ে দ্রগবা কি আবারও দেখাতে পারবেন বুড়ো হাড়ের ভেলকি? আবারও কি বিঁধবেন আর্সেনাল সমর্থকদের বুকে কাঁটা হয়ে?

066A1C660000044D-0-image-a-42_1429869307099

তাহলে টাইমমেশিনে করে কয়েকবছর পেছনে যাওয়া যাক দ্রগবার আর্সেনাল-প্রীতি জানার জন্য। মার্শেই থেকে ২৪ মিলিয়ন পাউন্ডের বিনিময়ে চেলসিতে আসার পর আর্সেনালের বিপক্ষে নিজের প্রথম দুই ম্যাচে দ্রগবা গোল করতে পারেননি একটাও। ২০০৫ সালের কমিউনিটি শিল্ডে দুই গোল করে বলতে গেলে আর্সেনালের বিপক্ষে একাই জেতান চেলসিকে, ২-১ গোলে। তার তিন সপ্তাহ পরে প্রিমিয়ার লিগের এক গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে আরও একটি গোল করে চেলসিকে জয় এনে দেন তিনি। ২০০৭ সালের লিগ কাপ ফাইনালে আবার নগরপ্রতিদ্বন্দ্বী আর্সেনালের বিপক্ষে জোড়া গোল করেন দ্রগবা। ২০০৮ সালে প্রিমিয়ার লিগের এক ম্যাচে আবারও আর্সেনালের বিপক্ষে দুই গোল করেন দ্রগবা।

এরপর আসে ২০০৯ সালের এফএ কাপ সেমিফাইনাল, আবারও গোল করেন দ্রগবা, ম্যাচেও জেতে যথারীতি চেলসি। এর পরের দুই মোকাবিলায় চেলসি জেতে ৩-০ ও ২-০ গোলে ; এই দুটি ম্যাচেই জোড়া করে গোল করেন কিং দিদি। ২০১০ সালে চেলসির হয়ে আর্সেনালের বিপক্ষে শেষ গোল করেন তিনি। কিন্তু তাই বলে হাঁফ ছেড়ে বাঁচতে পারেননি ওয়েঙ্গার। এমিরেটস কাপে গ্যালাতাসারাইয়ের হয়ে খেলতে এসে আবারও আর্সেনালের বিপক্ষে জোড়া গোল করেন দ্রগবা।

গ্যালাতাসারাইতে গিয়েও আর্সেনালকে শান্তি দেন নি দ্রগবা!
গ্যালাতাসারাইতে গিয়েও আর্সেনালকে শান্তি দেন নি দ্রগবা!

১৫ ম্যাচে ১৫ গোল। প্রতি ৭৮ মিনিট ২০ সেকেন্ড পরপর আর্সেনালের বিপক্ষে একটি করে গোল।

দ্রগবা কি পারবেন ১৬ ম্যাচে মোট ১৬ বা ততোধিক গোল করে আর্সেনালের সমর্থকদের বুক থেকে আরেকদফা রক্ত ঝরাতে?

কমেন্টস

কমেন্টস

মন্তব্য করুন

nine + seven =