মন খারাপের কিছু নেই, বুফন!

বর্ণাঢ্য ক্যারিয়ারে বিশ্বকাপ থেকে শুরু করে সম্ভাব্য সবকিছুই জিতেছেন, জেতেননি শুধু ক্লাবের হয়ে ইউয়েফা চ্যাম্পিয়নস লিগের শিরোপাটা। জিয়ানলুইজি বুফনের ক্যারিয়ার পারমা আর জুভেন্টাসে কাটলেও এই পর্যন্ত পুরো ক্যারিয়ারে তিন-তিনবার জুভেন্টাসের হয়ে প্রতিযোগিতাটির ফাইনালে উঠেও খালিহাতে ফিরতে হয়েছে তাদের। ২০০৩ সালে এসি মিলানের বিপক্ষে পেনাল্টিতে, ২০১৫ সালে বার্সেলোনার কাছে, ও এই বছর রিয়াল মাদ্রিদের কাছে হেরে চ্যাম্পিয়নস লিগ-স্বপ্নের সমাধি ঘটেছে কিংবদন্তী এই ইতালিয়ান গোলরক্ষক জিয়ানলুইজি বুফনের। বয়স হতে চলেছে প্রায় ৩৯, আর চ্যাম্পিয়নস লিগ জয়ের সম্ভাবনা নেই বললেই চলে। যদিও তিনি কালকে ঘোষণা দিয়েছেন যে যেহেতু জুভেন্টাসের সাথে তাঁর চুক্তির আর মাত্র এক বছর বাকী আছে, সেহেতু তাঁর আরেকবার চ্যাম্পিয়নস লিগে সুযোগ আছে! কিন্তু আর সবার মত বুফনও খুব সম্ভবত জানেন – সে আশা দুরাশা মাত্র।

কিন্তু শুধুমাত্র এই চ্যাম্পিয়নস লিগ জয় করতে পারেননি দেখে কি বুফনের লেগ্যাসিতে বিন্দুমাত্রও আঁচ পড়বে? অবশ্যই না! প্রত্যেক শ্রেষ্ঠ খেলোয়াড়ই জীবনে কিছু না কিছু জেতেননি। মেসির ভাগ্যে এখন জাতীয় দলের হয়ে শিরোপা জোটেনি, বিশ্বকাপ জেতা হয়নি রোনালদোর। এরকম ভাবে অনেক খেলোয়াড় আছেন যারা বিভিন্ন সময়ে বিশ্ব মাতিয়ে বেড়ালেও চ্যাম্পিয়নস লিগ ছুঁয়ে দেখতে পারেননি! তাদের কথা ভাবলে হয়তো বুফনের কষ্টে একটু হলেও প্রলেপ পড়বে! কে তাঁরা? একটু দেখে নেওয়া যাক!

  • ডিয়েগো ম্যারাডোনা (মিডফিল্ডার – আর্জেন্টিনা – বার্সেলোনা, নাপোলি, সেভিয়া)
  • রোনালদো (স্ট্রাইকার – ব্রাজিল – পিএসভি আইন্দহোভেন, বার্সেলোনা, ইন্টার মিলান, রিয়াল মাদ্রিদ, এসি মিলান)
  • দিনো জফ (গোলরক্ষক – ইতালি – নাপোলি, জুভেন্টাস)
  • মারিও কেম্পেস (স্ট্রাইকার – আর্জেন্টিনা – ভ্যালেন্সিয়া)
  • ড্যানিয়েলে প্যাসারেলা (ডিফেন্ডার – ফিওরেন্টিনা, ইন্টার মিলান)
  • ক্লদিও জেন্টাইল (ডিফেন্ডার – জুভেন্টাস)
  • জিউসেপ্পে বার্গোমি (ডিফেন্ডার – ইন্টার মিলান)
  • গ্যারি লিনেকার (স্ট্রাইকার – ইংল্যান্ড – লেস্টার সিটি, এভারটন, বার্সেলোনা, টটেনহ্যাম)
  • রবার্তো ব্যাজিও (স্ট্রাইকার – ইতালি – এসি মিলান, ইন্টার মিলান, জুভেন্টাস, ফিওরেন্টিনা)
  • রোমারিও (স্ট্রাইকার – ব্রাজিল – পিএসভি আইন্দহোভেন, বার্সেলোনা)
  • লোথার ম্যাথাউস (মিডফিল্ডার – জার্মানি – বায়ার্ন মিউনিখ, ইন্টার মিলান)
  • গিওর্গি হ্যাগি (মিডফিল্ডার – রোমানিয়া – বার্সেলোনা, রিয়াল মাদ্রিদ, গ্যালাতাসারাই)
  • গ্যাব্রিয়েল বাতিস্তুতা (স্ট্রাইকার – আর্জেন্টিনা – ফিওরেন্টিনা, এএস রোমা)
  • ডেনিস বার্গক্যাম্প (স্ট্রাইকার – নেদারল্যান্ডস – ইন্টার মিলান, আর্সেনাল)
  • ইভান জামোরানো (স্ট্রাইকার – চিলি – ইন্টার মিলান, রিয়াল মাদ্রিদ)
  • মার্সেলো সালাস (স্ট্রাইকার – চিলি – লাজিও, জুভেন্টাস)
  • ক্রিস্টিয়ান ভিয়েরি (স্ট্রাইকার – ইতালি – লাজিও, জুভেন্টাস, ইন্টার মিলান)
  • প্যাট্রিক ভিয়েরা (মিডফিল্ডার – ফ্রান্স – আর্সেনাল, এসি মিলান, ইন্টার মিলান)
  • লিলিয়ান থুরাম (ডিফেন্ডার – ফ্রান্স – জুভেন্টাস, বার্সেলোনা)
  • মিরোস্লাভ ক্লসা (স্ট্রাইকার – জার্মানি – ওয়ের্ডার ব্রেমেন, বায়ার্ন মিউনিখ, লাজিও)
  • জলাতান ইব্রাহিমোভিচ (স্ট্রাইকার – সুইডেন – জুভেন্টাস, আয়াক্স, এসি মিলান, ইন্টার মিলান, বার্সেলোনা, পিএসজি, ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড)
  • ফ্র্যানসেস্কো টট্টি (স্ট্রাইকার – ইতালি – এএস রোমা)
  • জিয়ানলুকা জামব্রোত্তা (ডিফেন্ডার – ইতালি – এসি মিলান, জুভেন্টাস, বার্সেলোনা)
  • ফ্যাবিও ক্যানাভারো (ডিফেন্ডার – ইতালি – জুভেন্টাস, রিয়াল মাদ্রিদ)
  • মাইকেল বালাক (মিডফিল্ডার – জার্মানি – বায়ার্ন মিউনিখ, বেয়ার লেভারকুসেন, চেলসি)
  • মাইকেল ওয়েন (স্ট্রাইকার – ইংল্যান্ড – লিভারপুল, রিয়াল মাদ্রিদ, ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড)
  • রুড ভ্যান নিস্টলরয় (স্ট্রাইকার – নেদারল্যান্ডস – ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড, রিয়াল মাদ্রিদ)
  • পাভেল নেদভেদ (মিডফিল্ডার – চেক প্রজাতন্ত্র – লাজিও, জুভেন্টাস)
  • ড্যানিয়েলে ডে রসি (মিডফিল্ডার – ইতালি – এএস রোমা)

কমেন্টস

কমেন্টস

মন্তব্য করুন

15 + 19 =