যে প্রত্যাশার কথা আসল লোকটা জানবেন না

The challenge is, indeed, psychological.
সত্যিকারার্থে কাপ টুর্নামেন্টে ফেবারিটদের জন্যে রানার আপ হওয়া আর ফার্স্ট রাউন্ডে বাদ পড়ার মধ্যে কোন পার্থক্য নাই । কিন্তু ফার্স্ট রাউন্ডে বাদ পড়া একটা দলকে সাইকোলোজিকালি আবার বাছাইপর্বের জন্যে চার্জ দেওয়াটা নতুন কোচের সবচেয়ে বড় চ্যালেঞ্জ হবে ।
সিলেকশন ব্লান্ডার ব্রাজিলে সবসময় ছিলো । ইউরোপের টপ পারফর্মাররা একজন দুইজন করে সব জেনারেশনেই বাদ গেছে দল থেকে। বাদ পড়ে তারা কখনো ইতালি টীমে আবার কখনো পর্তুগাল টীমে খেলেছে । ব্রাজিলিয়ান লিগের প্লেয়ারদের দিকে একটু ঝুঁকে থাকার কারণটা খুব সিম্পল । ২০১০ এর দুঙ্গা বা আজকের হাইপ উঠানো তিতে সবারই কিন্তু কোচিং ব্যাকগ্রাউন্ডটা আসলে ঐ ব্রাজিলিয়ান লিগেরই । সবাই ঐ লিগটাই কাছ থেকে দেখেছে । সে হিসেবে নিজের একদম কাছ থেকে দেখা লিগের পারফর্মারদের প্রতি একটু অন্ধ বিশ্বাস থাকাটাকে আপনি ক্রাইম বলতে পারেন । কিন্তু একদম অবাক হতে পারেন না ।
তাদের কোচিং ব্যাকগ্রাউন্ডটা ঐ লিগে থাকাতে তারা মাঝে মাঝেই ইউরোপের লিগের সাথে ল্যাটিন আমেরিকার লিগের গুণগণ পার্থক্যের দিকে সাদাচোখে তাকাতে পারেন না ।
আর ফুটবল জাতি হিসাবে ব্রাজিলের ফেডারেশন বা লিগ এখনো সাম্পাওলির মত ভালো আর্জেন্টাইন কোচকে নিয়োগ দেওয়ার মত উদার আর কসমোপোলিটন না । তো ২৩ জনের স্কোয়াডে সাও পাওলো বা কোরিন্থিয়াসের ৬/৭ জন ব্রাজিলের স্কোয়াডে সবসময়ই থাকবে । এবং সেটার কারণে কখনো কখনো ফিরমিনো বাদ যাবে আবার কখনো কখনো লুকাস মৌরা বাদ যাবে । স্কোলারি ওর দলটায় টানা লুকাসকে ইগনোর করে গেলো । দুঙ্গা কোপা আমেরিকায় পারফর্ম করা ফিরমিনোকে ইগনোর করে গেলো । এভাবে সবচেয়ে সফল ব্রাজিল ফলটার কথাও ঘেঁটে দেখুন। এমন দুই একটা সিলেকশন সারপ্রাইজ (আপনি ব্লান্ডারও বলতে পারেন) আপনাকে পেতেই হবে। আপনার আমার নাম না জানা ২-১ জনকে দেখবেন স্টার্টিং লাইন আপেও । এবং বিস্ময়করভাবে তারা মাঝে মাঝে ক্লিকও করে ফেলে । আবার কেউ কেউ এলিয়াসের মতও হয় ।
তবে আপনার এটা মেনে নিতে হবে, ব্রাজিলিয়ান প্লেয়ার দিয়ে আপনি শুধু ইউরোপে খেলা ৩০ জনের স্কোয়াড বানাতে পারলেও কোচের ২৩ জনেই ৬/৭ জন থাকবেই । এবং এদের মধ্যে ২/১ জন কোচের ফিলোসোফি বুঝে দলকে ইউরোপের অনেক হাই প্রোফাইল প্লেয়ারদের চেয়ে ভাল সার্ভ করে ফেলে ।
একদম ব্লান্ডারগুলোকে Undo করে দিক । আর নন ইউরোপ প্লেয়ারদের কাউকে একদম রেগুলার স্টার্টার করে দলের কম্পিটিটিভ ভাবটা নষ্ট না করে দিক । দরজা সবার জন্যে খোলা- এই মেসেজটা যাক সবার মধ্যে । ২০১৪ এর কান্ডের জন্যে আমি সব দোষ দিয়াগো কস্তাকে দেবো না । প্রতিনিয়ত ফ্রেড আর জো-তে বিশ্বাস রেখে ওভাবে ইগনোর করলে খারাপ লাগার কথা যে কারো ।
নতুন কান্ডারী পুরো ব্যাপারটাকে সহজ রাখুন এটাই কামনা । এলিয়াস বা রেনাতো অগাস্টোর সিলেকশনের মত জটিল ব্যাপার আমাদের মত প্যাশনেট ফ্যানদের চিন্তার জগতে না এনে দিক এটাই কামনা ।

কমেন্টস

কমেন্টস

মন্তব্য করুন

4 × two =