আজই শেষ উসাইন বোল্টের

সেই ২০০৮ সালে আসাফা পায়েল, জাস্টিন গ্যাটলিন কিংবা টাইসন গে দের হটিয়ে এ গ্রহের দ্রুততম মানবের তকমা গায়ে লাগান উসাইন বোল্ট। বেইজিং অলিম্পিকে বিশ্ব রেকর্ড গড়ে ‘স্প্রিন্ট ডাবল’ জেতার পরের বছর বার্লিন বিশ্ব চ্যাম্পিয়নশিপে ভাঙেন নিজের রেকর্ড। ৯.৫৮ ও ১৯.১৯ সেকেন্ডের রেকর্ড দুটি কি আদৌ কেউ ভাংতে পারবে? সম্ভব না বোধহয়। ২০১১ দেগু বিশ্ব চ্যাম্পিয়নশিপের ১০০ মিটারে ডিসকোয়ালিফাইড হয়েছিলেন ফলস স্টার্ট করে। এ ছাড়া ২০০৮ থেকে শুরু করে এখন পর্যন্ত কোনো অলিম্পিক বা বিশ্ব চ্যাম্পিয়নশিপে ১০০ বা ২০০ মিটারে কেউ হারাতে পারেনি তাঁকে। এমনকি কেউ তাঁর শ্রেষ্ঠত্বে হালকা আঁচড়ও কাটতে পারেননি, এতটাই অপ্রতিদ্বন্দ্বী তিনি। লন্ডনের গ্যালারি আজ বোল্টের জয় ছাড়া অন্য কিছুর সাক্ষী হলে সেটা স্প্রিন্টের ইতিহাসেই বড় অঘটন হবে সম্ভবত। জয় হোক বা পরাজয়, বোল্ট বা বজ্রবিদ্যুতের ঝলক এই শেষবারের মত দেখতে চলেছে বিশ্ববাসী। লন্ডনে ক্যারিয়ারের শেষ বিশ্ব চ্যাম্পিয়নশিপে অংশ নিতে এসেছেন তিনি, বাংলাদেশ সময় আজ রাতে তিনি ১০০ মিটারে দৌড়াবেন শেষবারের মতো। তারপর তিনি অতীত হয়ে যাবেন, নামের আগে ‘সাবেক’ বসবে, ট্র্যাকে আর পড়বে না তাঁর পদচিহ্ন!
 
এমনিতে বড় আসরে সেরাটা দিতে তাঁর জুড়ি নেই। ২০১২ লন্ডন অলিম্পিক বা ২০১৬ রিও অলিম্পিকের আগে তাঁকে ঘিরে যে অল্পবিস্তর দ্বিধাদ্বন্দ্ব তৈরি হয়েছিল, সেগুলো দূর করে দিয়েছেন আসল সময়ে। এবারও ১০০ মিটারে বছরের সেরা টাইমিং করা স্প্রিন্টারদের তালিকায় বোল্ট অনেক পেছনে। সাত নম্বরে তাঁর নাম! শেষবেলায় এসেও আবারো নিজেকে প্রমাণ করার মঞ্চটা পেয়েই গেলেন বোল্ট!
 
আজ ৫ আগস্ট রাত ১২টা ৫ মিনিটে ১০০ মিটার স্প্রিন্টের সেমিফাইনাল আর রাত্রি ২টা ৪৫ মিনিটে স্কই ইভেন্টের ফাইনালে নামবেন বোল্ট। সরাসরি দেখাবে স্টার স্পোর্টস সিলেক্ট ২, সিলেক্ট এইচডি ২।

কমেন্টস

কমেন্টস

মন্তব্য করুন

20 − nineteen =