১৬ বছরের আক্ষেপ ঘুচানোর আরেকটি সুযোগ কাল

আগামীকাল ১৭ই এপ্রিল বেলা আড়াইটায় মিরপুর শেরে-বাংলা ক্রিকেট স্টেডিয়ামে মাঠে নামছে বাংলাদেশ ও পাকিস্তান। তার সাথে বাংলাদেশ পাচ্ছে ১৬ বছরের পুরনো আক্ষেপ ঘুচানোর আরেকটি সুযোগ। সেই ১৯৯৯ সালের বিশ্বকাপে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে প্রথম ও শেষ জয় দেখেছিল বাংলাদেশ। ২০১৫ পর্যন্ত অনেক সাফল্যের ছোঁয়া পেলেও দেখা হয়নি পাকিস্তানের বিপক্ষে যেকোন ফরমেটে আর কোন জয়।

সাম্প্রতিক পার্ফরমেন্সে দুই দলের পাল্লা প্রায় সমান হলেও পাকিস্তান দলে নেই বিশ্বকাপ দলের অনেক তারকাই। তারুণ্য নির্ভর দলে অবশ্য আছেন ইঞ্জুরি থেকে ফেরা হাফিজ এবং নিষেধাজ্ঞা থেকে ফেরা সাঈদ আজমল। অন্যদিকে প্রথম ওয়ানডে ম্যাচে মাশরাফির নিষেধাজ্ঞা ছাড়া বিশ্বকাপে দুর্দান্ত পারফর্ম করা প্রায় সবাই আছেন বাংলাদেশ টিমে। সেক্ষেত্রে বাংলাদেশ দলকে কাগজে কলমে এগিয়ে রাখাই যায়।

তাছাড়া একমাত্র প্রস্তুতি ম্যাচে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে বিসিবি একাদশের ১ উইকেটের জয় সাথে সাব্বিরের দুর্দান্ত সেঞ্চুরি বাড়তি আত্মবিশ্বাস যোগাবে। তো খেলার মাঠেও বাংলাদেশকে এগিয়ে রাখতেই পারি।

ভারপ্রাপ্ত অধিনায়ক সাকিব-আল-হাসানের মত বলতেই পারি, “এটা পাকিস্তান কে হারানোর জন্য এখন পর্যন্ত পাওয়া সেরা সুযোগ।”

11149283_856591654378629_8959328812199656467_n

লড়াইয়ের মঞ্চ প্রস্তুত। মাঠে থাকবে ১১ জন বাঘ যাদের লক্ষ্য লড়াই জয় সাথে ১৬ কোটি মানুষের আক্ষেপর অবসান। “অনেক জেতা ম্যাচ হেরে গেছি, কান্নার জলে ভেসেছে হৃদয়। এখন সময় আক্ষেপ ঘুচানোর যার সাথে বদলাবে ১৬ বছর যাবত বয়ে চলা ভারী ইতিহাস।”

কমেন্টস

কমেন্টস

মন্তব্য করুন

11 − two =