হাফ ডজনে হাঁফ ছাড়ার ফুরসৎ

শুরুতেই হাঁফ ছাড়ার কথাটা বলি। অনেকেই ভুল বুঝতে পারে। এই হাঁফ ছাড়া রায়োর সাথে ম্যাচ জিতার জন্য নয়। কারণ এই ম্যাচ এমন কোন কঠিন ম্যাচ নয়। হাঁফ ছাড়ার কারণ হল দীর্ঘ দিন পর লীগা টেবিলের ১ নাম্বার পজিশন তার যোগ্য জায়গায় আসায়। দীর্ঘ দিন অজায়গায় কুজায়গায় এক নাম্বার পজিশনটা পড়ে ছিল। শেষ পর্যন্ত আবার যোগ্য ঘরে ফিরেছে। তাই হাঁফ ছাড়লাম। আশা করি লক্ষ্মী বউয়ের মত সিজনের বাকিটা সময়ে ঘরেই থাকবে এক নাম্বার পজিশন।

11008788_10153301858659305_3051654616694407355_n

ম্যাচের কথায় আসি। আসলে ম্যাচের কথা তো কিছু বলার নাই। মেসির কথায় আসি। ফার্স্ট হাফে তেমন মুডে ছিলেন না। তাও রায়োর ডিফেন্ডারদের নাকানি চুবানি খাওয়ালেন। সেকেন্ড হাফে পেনাল্টি থেকে গোলটা পাওয়ার পরই পুরনো রূপে ফিরে এলেন। একে একে আরো দুটি গোল করে নিজের ক্যারিয়ারের দ্রুততম হ্যাট্রিকটা করলেন। ওহ হ্যাঁ, এই হ্যাট্রিকটা কি রেকর্ড ব্রেকিং হ্যাট্রিক। লিওনেল এন্দ্রেস মেসি এখন লা লীগার হায়েস্ট হ্যাট্রিকের মালিক। মেসির বয়স মাত্র ২৭ বছর!

ও হ্যাঁ, আরেকটা রেকর্ড ভাঙ্গার কথা তো ভুলেই গেছিলাম। ক্লাব ফুটবলের ইতিহাসে পর পর ৬ সিজন খেলে এই ম্যাচে মেসি ৩১৪ তম গোল করার মাধ্যমে ফুটবলের কালো মানিক পেলের ৩১৩ গোলের রেকর্ডও ভেঙ্গে ফেলেন।

ইতিহাস গড়ার একটু আগে…

 

 

মেসির কথা অনেক হল। এবার আসি সুয়ারেজের কথায়। আমার মতে আজকের ম্যাচের বেস্ট ওয়ার্কার ছিল সুয়ারেজ। দিন দিন ভয়ংকর হয়ে উঠতেছে। আজকে ২ গোল করেছে। মেসিকে একটা এসিস্টও করেছে।

এরপর বলব জাভির কথা। বয়স অনেক হয়েছে। কিন্তু এখনও ফুঁড়িয়ে যান নি এটা আজকে আবার জানান দিলেন। ২ টা গোল জাভিই ক্রিয়েট করেন।

আরেক জনের কথা না বললেই না। পিকে। এক কথায় জোশ। কি এগ্রেশন! এই পিকে আগে কই ছিল! আমি দেখি আর হা করে চেয়ে থাকি।

B_lIPTSUcAIhrwZ

আলভেসের লাল কার্ড? হ্যাঁ ওটা পেনাল্টি ছিল। কিন্তু লাল কার্ড পাওয়ার মত ছিল বলে আমি মনে করি না।

সবার শেষে একটা জোকস বলে শেষ করি। এত দিন রিয়াল মাদ্রিদ ফ্যানরা বলত, We can’t hear you from the top of the table. :v :v

কমেন্টস

কমেন্টস

মন্তব্য করুন

17 − 12 =