স্টেইনদের জন্য ভালোবাসা, ককের জন্য করুণা!

 

ঠিক এইসব কারণেই স্টেইনের “বল বাঁচিয়ে” রাখা, বা ডি ককের স্লেজিং দেখে সেরকম আক্রোশ জন্মায় না যতটা না পাকিস্তান-ভারতের লাটসাহেবের বাচ্চাগুলিরে দেখে মন থেকে গালি বের হয়। স্টেইন একবার সেই “বল বাঁচিয়ে” রাখা কথা বললে দশবার বিভিন্ন মিডিয়ায় সেটার জন্য ক্ষমা চায়, প্রোটোকল-কোচের চোখরাঙ্গানী উপেক্ষা করে এই বৃষ্টির মধ্যে বাংলাদেশের ছেলেদের সাথে স্ট্রিট ফুটবল খেলতে নেমে পড়ে, সুপারস্টারের ভাব চুলোয় রেখে সাধারণ মানুষের মত রাস্তায় ছেলেদের সাথে স্ট্রিট ক্রিকেট খেলায় মজে যেতে পারে আমলারা ( http://on.fb.me/1DBEz9Y ), সফর শুরুর আগেই বাংলাদেশকে সমীহ করে হাজারটা প্রশংসাবাণী শোনায় আমলা-ভিলিয়ার্সরা।

তারা রশীদ লতিফের মত ক্যাচ নিয়ে চোরাচোট্টামিও করেনা ( http://bit.ly/1JiUy30), ধোনির মত মাঝপিচে ধাক্কাধাক্কিও করেনা, বাংলাদেশকে চ্যাম্পিয়নস ট্রফি থেকে বাদ দেওয়ার জন্য জিম্বাবুয়ে-ওয়েস্ট ইন্ডিজ নিয়ে হঠাৎ ত্রিদেশীয় সিরিজ আয়োজনের পরিকল্পনাও করেনা (পরে শ্রীলঙ্কার সাথে ৩-১ এ এগিয়ে থাকায় যেই দেখেছে চ্যাম্পিয়নস লিগে খেলা কনফার্ম সেই নিজেদের পরিকল্পিত সিরিজ থেকে নিজেরাই সরে এসেছে কিন্তু – http://bit.ly/1VEYCj3 ), সিরিজ খেলতে এসে লাটসাহেবের মত হোটেলে বসে বসে হোটেল নিয়ে হাজার কথা শোনায় না ( http://es.pn/1g9asSs ,http://bit.ly/1JiW0mc ) আর বিশ্বকাপ কোয়ার্টার ফাইনালের কথা নাহয় নাই বা বললাম!

আর Cock, তোকে impotent করার বিষয়টা নাহয় আমাদের মুস্তাফিজই দেখুক!

 

ছবি – বিডিনিউজ

কমেন্টস

কমেন্টস

মন্তব্য করুন

2 × 4 =