র‍্যাঙ্কিং বাড়ানোর নয়া উপায়!

২ টেস্ট মিলিয়ে ৪ দিন খেলে ৬ পয়েন্ট পেয়েছে বাংলাদেশ…ভারতের বিপক্ষে ফতুল্লা টেস্টেও সাকল্যে খেলা হয়েছিল ২দিন। অর্থাৎ, ২ সিরিজ মিলিয়ে ৬ দিন খেলে ৮ রেটিং পয়েন্ট পেয়েছে বাংলাদেশ।

টেস্টে বাংলাদেশের র‌্যাঙ্কিং বাড়ানোর একটা ভালো উপায় হতে পারে এটা। শীর্ষ দলগুলির সঙ্গে বৃষ্টির মৌসুমে খেলো, সিরিজ ড্র হোক…সঙ্গে রেটিং পয়েন্টে প্রাপ্তিযোগ! কিছুদিন পর আমরা অন্তত রাঙ্কিংয়ের মাঝামাঝিতে উঠতে পারব 🙂

আর ৪ দিন খেলে ৫ পয়েন্ট হারিয়েছে দক্ষিণ আফ্রিকা। হাশিম আমলা বেচারা বুঝতেই পারতেছে না কি থেকে কি হয়ে গেল! 

** জোকস অ্যাপার্ট, একেবারেই না খেলার চেয়ে আমি বৃষ্টির মৌসুমেও খেলার পক্ষপাতি। এবার না খেললে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে খেলতে হতো হয়ত আবার ২০২৩ সালের পরে। ভারতের বিপক্ষেও কবে হতো, কে জানে! আামাদের যখন ক্রিকেট মৌসুম, বেশির ভাগ শীর্ষ দলেরই তখন ক্রিকেট মৌসুম। তারা কেন আসবে তখন বাংলাদেশে? র্শীর্ষ দলগুলির বিপক্ষে বৃষ্টির মৌসুমে হলেও আমি খেলার পক্ষপাতি। অন্তত কিছু তো খেলা হবে! এবার অন্তত ওয়ানডে গুলো তো মোটামুটি ঠিকভাবে হয়েছে!

লেখকের ফেইসবুক স্ট্যাটাস অবলম্বনে…

কমেন্টস

কমেন্টস

মন্তব্য করুন

seventeen − 3 =