টেস্ট রোমাঞ্চে ভরপুর এক দিন- দুদলই সমানে সমান

আহা! এমন দিন দেখার জন্যই তো টেস্ট ক্রিকেট দেখা যায় এবং বলা যায়, ওহে বাচ্চারা, ওয়ানডে আর টি টুয়েন্টি দেখে দেখে রুচি নষ্ট হয়ে গেছে তো, তাই বুঝছো না, আসল মজা হল টেস্ট ক্রিকেটে, যা ক্ষণে ক্ষণে রঙ বদলায়, যেখানে জয়ের জন্য শারীরিক ও মানসিক শক্তির পরীক্ষা দিতে হয় সবথেকে বেশি। আজকে একটা স্বপ্নের দিন দেখলাম টেস্ট ক্রিকেটের জন্য!

খেলা সবাই দেখেছেন, আমি আর দেখা জিনিস নিয়ে কিছু লিখবো না। আশা করি, তামিমের ৭১ আর সাকিবের ৮৪ দেখে আমাদের পরিণতিবোধ সম্পর্কে বুঝবেন, তবে তথাকথিত হ্যাঁটার রা কিছুতেই বুঝবে না! তা না বুঝুক, যায় আসে না তাতে কিছুই। অমন কঠিন উইকেটে তামিম যে সংযম দেখালেন, তা থেকে তরুণ রা শিখবেন আশা রাখি। আর সাকিব করলেন পরিস্থিতির দাবী মেনে আদর্শ ব্যাটিং। এই উইকেটে যখন তখন বল বাউন্স করবে, আবার নিচুও হবে। তাই, এটা এমন উইকেট, যেখানে সতর্কতা আর আক্রমণের মিশেল টা ভালো ভাবে রপ্ত করতে হবে ভালো খেলতে হলে, যেটা সাকিব তামিম করেছেন। দুজনেরই ৫০ তম টেস্ট, দুজনকেই সেঞ্চুরি করতে দেখলে ভালো লাগতো, তবে যা করেছে তাও কম না- এক কথায় অসাধারণ!

চণ্ডিকা হাথুরুর কাছে আমার প্রশ্ন, স্যার, কোন যুক্তিতে সৌম্য এর মতো নড়বড়ে টেকনিকের একজন ওপেন করে, তাও অসিদের বিপক্ষে? ইমরুল সাহেবের খোঁচা দেওয়া রোগ টা না সারা পর্যন্ত তাকে বাদ দিয়ে মুমিনুল কে খেলানো উত্তম হত না? আর চার নম্বরে সাব্বির কোন যুক্তিতে নামেন টেস্ট এ? আপনার পরীক্ষা নিরীক্ষার জায়গা এটা নয়! আপনি নির্ঘুম রাত পার করে যে একাদশ বেছে নিলেন, তাতে আমার কাছে শুধু নাসিরের অন্তর্ভুক্তি টা ভালো মনে হয়েছে, দুঃখের সাথে বলতে হয়, টেস্ট ক্রিকেট ফাটকা খেলবার জায়গা নয়।

যাই হোক, হাথুরু প্রসঙ্গ বাদ আপাতত। অসি দলের দুজনকে অভিনন্দন না দিলে অবিচার হবে, এক নম্বর প্যাট কামিন্স আর দুই নাথান লায়ন। একজন সুইং, গতি আর বাউন্সারের মিশেলে বাংলাদেশ কে ১০/৩ বানিয়ে ফেলেছেন আরেকজন এমন ঘূর্ণি জাদু দেখিয়েছেন, যা চিরকাল মনে রাখার মতো। পুরষ্কার হিসেবে সাকিবের উইকেট টা পেয়েছেন লায়ন।

প্রথম দিনের শেষ ভাগে হল নাটকের বাকি অংশ। ওয়ারনার মিরাজের ঘূর্ণির মায়ায় আটকে গেলেন, পাগুলে দৌড় দিয়ে অ্যালান ডোনাল্ড কে মনে করিয়ে দিয়ে রান আউট উসমান খাজা। আর নাইট ওয়াচম্যান লায়ন এবার নিজেই আটকা সাকিবের ঘূর্ণির মায়াজালে। অস্ট্রেলিয়া ১৮/৩!!!

সব মিলিয়ে রোমাঞ্চকর এক ম্যাচের সূচনা হল। ওগো বৃষ্টি তুমি আগামী চারদিন মিরপুরে এসো না- এই গান করতে হবে এখন! আর মিলিয়ন ডলারের প্রশ্ন- কত রানে আউট হবেন অসি দলপতি স্মিথ?- এই প্রশ্নের উপর ম্যাচের ভাগ্য নির্ভর করছে অনেক খানি।

কমেন্টস

কমেন্টস

মন্তব্য করুন

12 − 5 =