কিংবদন্তি তোমাকে ধন্যবাদ!

খুব কষ্ট হচ্ছে। খুব বেশিই কষ্ট হচ্ছে। কিছুদিন আগে যে আমিই কিনা তাঁর বিদায়ের ক্ষণ গুনছিলাম, ক্লাব না ছাড়াতে বিরক্ত হচ্ছিলাম, সেই আমিই কিনা এখন আর সহ্য করতে পারছি না। রীতিমত কান্না পাচ্ছে বলা যায়। রিয়াল মাদ্রিদ নামক ক্লাবটাকে সাপোর্ট করার শুরু থেকেই যে ব্যক্তিটিকে গোলপোস্টের সামনে দাঁড়াতে দেখে আসছি…সেই ভদ্র, মাথা ঠাণ্ডা এবং তার চেয়েও বড় শ্রদ্ধাভাজন মানুষটিকে আর কখনই ওই যায়গায় দেখব না। চিন্তা করতেই বিশাল শূন্যতা ভর করছে আমার মাঝে।

kasiljas-donel-odluka-na-leto-odi-vo-premierligata-video-35263

ইকার ক্যাসিয়াস শুধু একজন খেলোয়াড়ের নামই না। ইকার ক্যাসিয়াস একজন কিংবদন্তির নাম। ইকার ক্যাসিয়াস রিয়াল মাদ্রিদের মত একটি ক্লাবের এম্বলেম। রিয়াল মাদ্রিদের হয়ে রেকর্ড ১৬ সিজন ধরে খেলছেন। প্রায় ৭৩০ টির মত ম্যাচ খেলে ফেলেছেন একটি মাত্র ক্লাবেরই জার্সি গায়ে। চ্যাম্পিয়ন্স লিগে তিনি রেকর্ড ১৫০ ম্যাচ খেলেছেন। আর লা লিগাতে যৌথভাবে সবচেয়ে বেশি ম্যাচ জয়ের রেকর্ড তো তাঁর ঝুলিতে আছেই। একজন রিয়াল মাদ্রিদ খেলোয়াড় হিসেবে তাঁর ট্রফি ক্যাবিনেটে শোভা পাচ্ছে ৩ টি চ্যাম্পিয়ন্স লিগ শিরোপা, ১ টি ক্লাব ওয়ার্ল্ড কাপ, ২ টি ইন্টারকন্টিনেন্টাল কাপ, ২ টি ইউরপিয়ান সুপার কাপ, ৫ টি লা লিগা টাইটেল, ২ টি কোপা দেল রে এবং ৪ টি স্প্যানিশ সুপার কাপ শিরোপা! এগুলো তো গেল ক্লাবের কথা। এবার আসুন একটু জাতীয় দলের দিকে ভিড়ি। এখানেও রেকর্ড ভেঙ্গেছেন তিনি। স্পেনের ইতিহাসে তাদের জাতীয় দলের হয়ে সবচেয়ে বেশি ম্যাচ খেলার রেকর্ডটা একমাত্রই তাঁর। স্পেনের ইতিহাসের প্রথম এবং একমাত্র বিশ্বকাপটাও অধিনায়ক ক্যাসিয়াসের হাত ধরেই এসেছে। এছাড়াও স্পেনকে তিনি ২ টি ইউরো চ্যাম্পিয়নশিপ জিতিয়েছেন।

বড্ড বেশি ভালবাসেন তিনি রিয়াল মাদ্রিদকে। আর তাই ডি গিয়া আসাতে সমূহ প্রতিযোগিতার সম্মুখীন হতে পারেন ভেবেও কিন্তু ক্লাবটায় তিনি থেকে যেতে চেয়েছিলেন। দীর্ঘ ২৫ বছরের বন্ধনটা একদম গ্লাভসজোড়া খুলে রাখার আগ পর্যন্ত অটুট রাখতে চেয়েছিলেন। কিন্তু পারলেন না। অনেক চেষ্টা করেও পারলেন না। এইতো আর কিছুক্ষনের মাঝেই অফিসিয়াল ঘোষণা চলে আসবে। নতুন গন্তব্য পোর্তোর উদ্দেশ্যে খুব শীঘ্রই পাড়ি জমাবেন তিনি। রিয়ালের সমর্থকদের উদ্দেশ্যে আনুষ্ঠানিক বিদায়ভাষণ দিবেন এই শুক্রবার। ওটাও হবে বার্নাব্যুতে তাঁর শেষ পদচারনা। আহ! কি কষ্টই না তাঁর বুকটায় হচ্ছে এখন! যাই হোক এসব যত বেশি বলব ততই আরও দুঃখ বাড়বে। তাই টপিক চেইঞ্জের আগে শেষবারের মত একদম অন্তরের মাঝ থেকে আমার খুব প্রিয় এই মানুষ এবং খেলোয়াড়টিকে আরেকবার ধন্যবাদ দিতে চাই। ধন্যবাদ ইকার ক্যাসিয়াস। রিয়াল মাদ্রিদের হয়ে খেলার জন্য তোমাকে ধন্যবাদ। আমাদেরকে অনেক কঠিন পরিস্থিতিতে অসংখ্যবার আশ্চর্যজনক ভাবে বাঁচানোর জন্য তোমাকে ধন্যবাদ। রিয়াল মাদ্রিদের সমর্থকরা তোমার খেলা দেখতে পেরে, তোমাকে সাপোর্ট দিতে পেরে গর্বিত। রিয়াল মাদ্রিদ ফুটবল ক্লাবও তোমার মত একজন খেলোয়াড়কে পেয়ে গর্বিত।

এবার একটু ‘ডি গিয়া’ সাগার দিকে চোখ দেই। যদিও এখন গিয়া নামটা আমাকে আর উৎসাহ দিচ্ছে না। না দেবার যথেষ্ট কারন আছে। রেড ডেভিল (আসলেই ডেভিল) ম্যানেজার লুই ফন গাল নতুন পর্যায়ের নক্তামি শুরু করেছেন। ডি গিয়ার ডিলে সার্জিও র‍্যামোসকেও ইনক্লুড করতে হবে। নইলে সাফ ক্যান্সেল হয়ে যাবে ডিল। এখন আমার কথা হল ইতোমধ্যেই খুব প্রিয় একজন ব্যাক্তি ক্লাব ছেড়ে চলে যাচ্ছেন। মরার উপর খাঁড়ার ঘা হিসেবে আমি এখন র‍্যামোসর বিদায় দেখতে চাই না। সহ্যেরও একটা সীমা আছে। এক সিজনে আমার মত একজন মাদ্রিদিস্তা এরকম ডাবল ব্লো কোনভাবেই নিতে পারবে না।

কিকো ক্যাসিলা

আর হয়ত এইসব দিক চিন্তা করে এবং ওইদিকে কেইলর নাভাস ইঞ্জুরিতে থাকায় “চ” বর্গীয় প্রাণী পেরেজ এবার এস্পানিওলের গোলকিপার কিকো ক্যাসিলার দিকে নজর দিয়েছেন যার বর্তমান বাজারমূল্য ২০ মিলিয়ন ইউরো। তবে এই ক্যাসিলা মাদ্রিদের অ্যাকিডেমির খেলোয়াড় ছিলেন। সুতরাং তাঁকে চাইলে মাদ্রিদ বর্তমান বাজার মূল্যের অর্ধেক দামেই কিনতে পারবে। তবে ডী গিয়ার জন্যও মাদ্রিদ হয়ত শেষবারের মত আরও একটিবার চেষ্টা করবে। তাতেও যদি কাজ না হয় তাহলে পরবর্তী মৌসুমে ফন গালকে কলা দেখিয়ে ফ্রি ট্রান্সফারে তিনি যে মাদ্রিদে পাড়ি জমাবেন তা আর দুবার বলে দিতে হয় না।

কমেন্টস

কমেন্টস

মন্তব্য করুন

six + 5 =