এখনো কেন ছাঁটাই হন নি মরিনিও?

গোল্লাছুট বাংলা ভাষার প্রথম খেলাকেন্দ্রিক ব্লগ যেখানে খেলাপ্রিয় পাঠক-ই লেখক, লেখক-ই পাঠক!

 

প্রশ্নটা মনে আসা খুবই স্বাভাবিক, যারা এত বছর ধরে ইংলিশ ফুটবলে চেলসি মালিক রোমান আব্রামোভিচের কার্যকলাপ দেখছেন এই প্রশ্নটা তাঁদের মনে আসাটা অস্বাভাবিক কিছু নয়। গত মৌসুমে ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের চ্যাম্পিয়নরা এই মৌসুমে ৩৮ ম্যাচের মধ্যে ১৬ ম্যাচ শেষ হয়ে যাবার পরে মাত্র ১৫ পয়েন্ট নিয়ে ১৬ নম্বর অবস্থানে আছে, রেলিগেশনের খড়্গ থেকে মাত্র এক পয়েন্ট দূরে। আব্রামোভিচ-রাজের সময়কালে এরই মধ্যে ক্লদিও রানিয়েরি, হোসে মরিনিও (প্রথমবার), আভরাম গ্রান্ট, কার্লো আনচেলত্তি, আন্দ্রে ভিয়াস বোয়াস, গাস হিডিঙ্ক, রবার্টো ডি মাত্তেও, রাফায়েল বেনিতেজ – কোচের পরে কোচ পরিবর্তন হয়েছে চেলসিতে, শুধুমাত্র আব্রামোভিচের প্রত্যাশিত ফলাফল না আসার কারণে (হ্যাঁ, হিডিঙ্ক বা বেনিতেজ অন্তর্বর্তীকালীন ম্যানেজার ছিলেন, ফলে তাঁদের ক্ষেত্রে ছাঁটাই শব্দটা বলা সাজে না, কিন্তু তাঁদের কাজ যদি আব্রামোভিচ পছন্দই করতেন সেভাবে, তবে কি তাঁরা পাকাপাকিভাবে চেলসির ম্যানেজার হয়ে যেতেন না?), সেইখানে বারবার বোর্নমাথ, ক্রিস্টাল প্যালেস, স্টোক সিটি, সাউদাম্পটন, ওয়েস্টহ্যাম, লেস্টার সিটির মত দলের কাছে হারের পর রেলিগেশনের খড়্গ মাথায় নিয়ে থাকার পরেও মরিনিওর দিনের পর দিন থেকে যাওয়াটা একটা সন্দেহরই সৃষ্টি করে। আব্রামোভিচ এখনো ছাঁটাই কেন করছেন না মরিনিও কে?

102295

কারণ খুঁজতে গেলে মূল কারণ হিসেবে বের হয়ে আসবে দুটি তথ্য।

১. চেলসির বর্তমান ফর্ম যত খারাপই হোক না কেন, এটা মেনে নিতেই হবে যে হোসে মরিনিও শুধু বর্তমানকালেরই নন, বিশ্ব ইতিহাসের সর্বকালের অন্যতম শ্রেষ্ঠ ম্যানেজার। এখন আপনি একজন চ্যাম্পিয়ন দল হয়ে শ্রেষ্ঠ কোন ম্যানেজারকে ছাঁটাই করতে চাইলে তাঁর পরিবর্ত হিসেবে আরেকজন সময়ের শ্রেষ্ঠ ম্যানেজারকেই ত লাগবে, তাই না? মরিনিও ছাড়া এখন এইসময়ের শ্রেষ্ঠ ম্যানেজার কে কে আছেন? হাতেগোনা কয়েকটা নামই মাথায় আসবে – পেপ গার্দিওলা, ইয়ুর্গেন ক্লপ, কার্লো অ্যানচেলত্তি, লুইস এনরিকে, আর্সেন ওয়েঙ্গার, জোয়াকিম লো – এই ত। লুই ভ্যান হান, গাস হিডিঙ্ক, রবার্তো মানচিনি, ফ্র্যাঙ্ক ডি বোর, লরাঁ ব্লাঁ, ডিয়েগো সিমিওনি, ম্যাসিমিলিয়ানো অ্যালেগ্রি – এদেরকে শ্রেষ্ঠতম থেকে এক ধাপ নিচে রাখা যেতে পারে। তাঁর থেকেও বড় সত্যি কথা হল প্রত্যেকেই এখন জুভেন্টাস, বার্সেলোনা, লিভারপুল, আর্সেনাল, ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড, ইন্টার মিলান, বায়ার্ন মিউনিখ, জার্মানির মত রাঘব বোয়াল ক্লাব বা দেশের দায়িত্বে আছেন। তাঁরা তাঁদের নিশ্চিত চাকরি ছেড়ে মাঝ মৌসুমে চেলসির হাল ধরতে আসবেন কেন? আর তাঁদের ক্লাবই বা চিরবৈরী দলের হাতে নিজের শ্রেষ্ঠ ম্যানেজারকে তুলে দেবে কেন?

আবারও টাকা খসবে আব্রামোভিচের?
আবারও টাকা খসবে আব্রামোভিচের?

কিছুদিন আগে এইরকম পরিস্থিতি হতে পারে বলেই কিন্তু বিশাল এক দাঁও মেরে বসেছে লিভারপুল। লিগে চেলসি লিভারপুল দুইদলের অবস্থাই খারাপ ছিল, লিভারপুলের মালিকপক্ষ সময়ক্ষেপণ না করে ব্রেন্ডান রজার্স কে ছাঁটাই করে নিয়ে আসে এই সময়ের অন্যতম শ্রেষ্ঠ ম্যানেজার ইয়ুর্গেন ক্লপকে, যার ফলও তাঁরা পাচ্ছে হাতেনাতে। ফলে চেলসির জন্য মরিনিওকে ছাঁটাই করা হয়ে গেছে আরও ঝামেলার। কোন বেস্ট ম্যানেজারই ত ফ্রি নেই, মরিনিও গেলে আসবেন কে? আর ক্লপ যদি এতদিন ফ্রি থাকতেন, মরিনিও কি এতদিন চেলসির চাকরি ধরে বসে থাকতেন? মনে হয় না!

২. দ্বিতীয় ও অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ কারণ হল এখন আব্রামোভিচ যদি মরিনিওকে ছাঁটাই করেনও, বিশাল অঙ্কের একটা ক্ষতিপূরণ দেওয়া লাগবে মরিনিও ও তাঁর দলবলকে। গত মৌসুমে লিগজয়ের পরেই আনন্দে ডগমগ আব্রামোভিচ মরিনিওর সাথে নতুন চার বছরের চুক্তি করেছিলেন, চুক্তি অনুযায়ী সামনের চার বছরের প্রতি সপ্তাহে ২৫০,০০০ পাউন্ড করে পেতেন মরিনিও। এখন মরিনিওকে ছাঁটাই করতে হলে মোটমাট ৪০ মিলিয়ন পাউন্ড মত পকেট থেকে খসাতে হবে আব্রামোভিচকে। যে পরিমাণ টাকা দিয়ে মোটামুটি আর্তুরো ভিদাল, টমাস মুলার, মার্কো রিউস, থিয়াগো সিলভার মত বিশ্বসেরা যেকোন খেলোয়াড়কে দলে ভেড়ানো সম্ভব! এই মৌসুমে মরিনিওকে নিয়ে এরকম হ্যাপা পোহাতে হবে জানলে কি আব্রামোভিচ এত টাকার চুক্তি করতেন মরিনিওর সাথে? মনে হয় না!

মরিনিওকে বিদায় করতে গেলে যে টাকা দেওয়া লাগবে, তা দিয়ে সহজেই কেনা যাবে ভিদালের মত মিডফিল্ডারকে
মরিনিওকে বিদায় করতে গেলে যে টাকা দেওয়া লাগবে, তা দিয়ে সহজেই কেনা যাবে ভিদালের মত মিডফিল্ডারকে

তবে আব্রামোভিচ বলে কথা, ৪০ মিলিয়ন পাউন্ড খসিয়ে ছাঁটাই করে ফেলতেও পারেন মরিনিওকে যদি অবস্থা আরও খারাপ হয়। প্রথমবার চেলসি থেকে মরিনিওকে ছাঁটাই করার সময় এই আব্রামোভিচের পকেট থেকেই কিন্তু ১৬ মিলিয়ন পাউন্ড মত খসেছিল, পরে বিদায়ী কোচের প্রতি কৃতজ্ঞতাস্বরূপ একটা ফেরারি গাড়িও উপহার দিয়েছিলেন আব্রামোভিচ!

কমেন্টস

কমেন্টস

মন্তব্য করুন

4 × 4 =